বনানীতে ধর্ষণ: ফুটে উঠেছে প্রশাসনিক দুর্বলতা

মামলা হয়েছে ধর্ষণের অভিযোগে। কিন্তু একে একে জন্ম নিচ্ছে নানা ঘটনা। আলোচনার মূল বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে আপন জুয়েলার্স ও রেইন ট্রি হোটেল। 

বেড়ে গেছে শুল্ক গোয়েন্দাদের দৌড়ঝাপও। জব্দ হয়েছে আপন জুয়েলার্সের প্রায় ৫০০ কেজি স্বর্ণ। বিশ্লেষকরা বলছেন, বনানীতে দুই ছাত্রী ধর্ষণের মামলার পর ফুটে উঠেছে গোজামিল দিয়ে চলা প্রশাসনিক দুর্বলতার বিষয়টি। ঘটনার প্রায় ৪০ দিন পর গত ৬ মে বনানী থানায় আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত আহমেদ ও তার দুই সহযোগী নাইম আশরাফ এবং সাদমান সাকিফসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা করেন দুই বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী। ঘটনাস্থল এপ্রিলে আনুষ্ঠানিকভাবে ব্যবসা শুরু করা বনানীর হোটেল রেইনট্রি।

সামাজিক ও গণমাধ্যমে তোলপাড় শুরু হয় এই ঘটনায়। মামলা দায়েরের পর থানা পুলিশের গড়িমসিতে সমালোচনায় পড়ে আইনশৃংখলা বাহিনীর ভুমিকা। আসামী গ্রেফতারের দাবির পাশাপাশি ময়নাতদন্ত শুরু হয় হোটেল রেইনট্রি ও অভিযুক্ত আপন জুয়েলার্সের স্বর্ণ ব্যবসা নিয়ে। 

এরই মাঝে আসামী গ্রেফতারের পাশাপাশি শুরু হয় নান অভিযান। হোটেল রেইনট্রিতে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের অভিযানে শুন্য ফলাফলের পরদিন আবারো অভিযান চালায় শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তর। অবৈধ উপায়ে স্বর্ণ আমদানির অভিযোগে অভিযান হয় আপন জুয়েলার্সেল ৫টি শাখায়। জব্দ হয় ৪৯৮ কেজি স্বর্ণ ও ৪২৭ গ্রাম হীরা। প্রশ্ন ওঠে এতদির এসব অভিযান না হবার কারণ নিয়ে। বিশ্লেষকরা বলছেন, প্রশাসনিক দৈন্যতা ফুটে উঠেছে বনানীর ঘটনার পরে।

 

 

 

 

Last modified on 20-05-2017 04:01:10 PM

চ্যানেল 24

387 South, Tejgaon I/A
Dhaka-1208, Bangladesh
Email: newsroom@channel24bd.tv
Tel: +8802 550 29724
Fax: +8802 550 19709

Save

Save

Like us on Facebook
Satellite Parameters
Webmail

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save