ঢাকায় ফের যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠক; আলোচনার জন্য আরও সময় চায় মিয়ানমার

চুক্তির দু'মাসের মধ্যে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরুর কথা থাকলেও; পেরিয়ে গেছে ৬ মাস। এখনও কাউকেই ফেরত নেয়নি, মিয়ানমার। ঢাকায় দ্বিতীয় দফায় যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠক শেষে দেশটির পররাষ্ট্র সচিব বলছেন, প্রক্রিয়া ঠিক করতে আরও আলোচনা দরকার। আর বাংলাদেশের পররাষ্ট্র সচিব জানালেন, রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন, দ্রুত শুরুর ব্যাপারে একমত হয়েছেন তারা।

 

কথিত সন্ত্রাসী হামলার জেরে ২৫ আগস্ট রাখাইন রাজ্যে সেনা অভিযান শুরু করে মিয়িানমার। ভিটেছাড়া হন ৭ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা। জীবন বাঁচাতে সীমান্ত পাড়ি দিয়ে আশ্রয় নেন বাংলাদেশে। 

বাংলাদেশের কূটনৈতিক প্রচেষ্টা ও আন্তর্জাতিক চাপের মুখে এই শরণার্থীদের ফিরিয়ে নিতে ২৩ নভেম্বর চুক্তি করে মিয়ানমার। কিন্তু ছয় মাসে একজনকেও ফেরত নেয়নি তারা।  

চুক্তি অনুযায়ী প্রত্যাবসন প্রক্রিয়া এগিয়ে নিতে দুই দেশের প্রতিনিধিদের নিয়ে যে যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপ গঠন করা হয়েছিলো তার দ্বিতীয় বৈঠক হলো ঢাকায়। পররাষ্ট্র সচিব জানালেন রোহিঙ্গাদের দ্রুত প্রত্যাবাসনে দুই পক্ষই একমত।

তবে, মিয়ানমারের পররাষ্ট্র সচিবের কথায় দ্রুত প্রত্যাবাসন শুরু হওয়ার ইঙ্গিত মেলেনি।

চুক্তি অনুযায়ী, যাচাই করা বাসিন্দাদেরই কেবল ফেরত নেবে মিয়ানমার। ৩ মাস আগে বাংলাদেশের দেয়া  ৮ হাজার ৩২ জনের তালিকা থেকে মাত্র ৮৭৮ জনকে যাচাই করেছে মিয়ানমার। তাই প্রশ্ন ছিল এই প্রক্রিয়ায় ত্রুটি কোথায়?

পররাষ্ট্র সচিব শহিদুল হক বলেন ,তারাও ভুল করেনি, আমরাও ভুল করিনি।

মিয়ানমারের পররাষ্ট্র সচিব বলেন, যে সব জটিলতা আছে তা আমরা যৌথভাবে কাটিয়ে ওঠার চেষ্টা করছি

প্রত্যাবাসনের জন্য কি ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে, সেসব তথ্য, বাংলাদেশের মাধ্যমে রোহিঙ্গাদের কাছে পৌছাতে চায় মিয়ানমার।

Last modified on 17-05-2018 09:05:55 PM

চ্যানেল 24

387 South, Tejgaon I/A
Dhaka-1208, Bangladesh
Email: newsroom@channel24bd.tv
Tel: +8802 550 29724
Fax: +8802 550 19709

Save

Save

Like us on Facebook
Satellite Parameters
Webmail

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save