ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে তীব্র যানজটে ভোগান্তিতে যাত্রীরা 

দুদিন বাদে পুরোদমে শুরু হচ্ছে ঈদযাত্রা। প্রিয়জনের সান্নিধ্য পেতে দূরদূরান্তে ছুটবে রাজধানীবাসী।

কিন্তু মহাসড়কে এখনই যে ধরনের যানজট তাতে কাটছে না শঙ্কা। বিশেষ করে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে। কাঁচপুর ও মেঘনা সেতুসহ কয়েকটি পয়েন্টে তীব্র জটলার কারণে ভোগান্তি আর যাত্রার সময় দুই-ই বাড়ছে। ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়ক। দু বছর আগে চারলেন চালুর পর গতি আসে এই পথে। 

কিন্তু সম্প্রতি আবারো তীব্র যানজট নাভিশ্বাস তুলেছে যাত্রীদের। নারায়নগঞ্জের কাঁচপুর ব্রিজ। ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম যাবার পথে প্রথম ধাক্কা এখানে। কারণ ব্রিজের অপর প্রান্তেই চলছে নতুন সেতু, রাস্তা প্রশস্তকরণ ও আন্ডারপাস নিমাণের বিশাল কর্মযজ্ঞ। ফলে এখানে অন্তত ঘন্টাখানেকের জটলায় পড়তে হয়। কাঁচপুর পেরিয়ে পরবর্তী ১২/১৩ কিলোমিটার গাড়ি চলে স্বাভাবিক গতিতেই। কিন্তু সেই গতি থমকে যায় মেঘনা সেতুর দু কিলোমিটার আগেই। দীর্ঘ যানজটে আটকে পড়ে হাজার হাজার গাড়ি। যে জটলা পার হতে ঘন্টা পেরিয়ে যায়।    

টোল প্লাজায় ধীর গতির বড় কারণ মালবাহী গাড়ির ওজন পরিমাপ। একেকটি গাড়ির ওপজনে সাধারণত সময় লাগে দেড়-দুমিনিট। কিন্তু, যেসব গাড়ি ২২ টনের বেশি মালবহন করে তাদেরকে জরিমান গুনতে হয়। আর এই জরিমানা দেনদরবার করতেই একটি গাড়িতেই চলে যায় অতিরিক্ত ১০-১৫মিনিট। ফলে লম্বা হতে থাকে যানজট। দীর্ঘক্ষণ পর টোল প্লাজা পার হতে পারলেও, মেঘনা সেতুর অপ্রশস্ত প্রবেশ পথে গতি হারায় গাড়িগুলো। এই সমস্যা নিরসনে তৈরী হচ্ছে দ্বিতীয় মেঘনা সেতু। তবে কাজ শেষ হতে সময় লাগবে ডিসেম্বর পর্যন্ত। ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়কে এতো যানজটের মাঝে আশার কথা হলো- ফেনী রেল ক্রসিং এলাকায় নির্মানাধীন ফ্লাইওভারের দুটি লেন খুলে দেয়া হয়েছে, মুক্তি মিলেছে দু-তিন ঘন্টার যানজট থেকে।

 

চ্যানেল 24

387 South, Tejgaon I/A
Dhaka-1208, Bangladesh
Email: newsroom@channel24bd.tv
Tel: +8802 550 29724
Fax: +8802 550 19709

Save

Save

Like us on Facebook
Satellite Parameters
Webmail

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save

Save